বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০১:৪২ পূর্বাহ্ন

অবশেষে জবাই করা হলো পাবনার সেই টাইগার নামের ষাঁড়- অশ্রুসজল সবাই

সৈয়দ রুমী : ৩০ লাখ টাকা দাম হাঁকিয়ে সারাদেশে আলোচনায় আসা ৪২ মণ ওজনের সেই ষাঁড় গরু ‘টাইগার’কে অবশেষে জবাই করে গোস্ত বিক্রি করা হয়েছে।

আজ শনিবার (২৪ আগস্ট) বিকেলে গোয়াল ঘরে পা পিছলে দুই পা ভেঙ্গে যায় টাইগারের। পরে অনচ্ছিা স্বত্ত্বেও প্রিয় ষাঁড় গরুটি জবাই করতে বাধ্য হন মালিক মিনারুল ইসলাম।

বিভিন্ন এলাকায় মাইকিং করে টাইগারের গোস্ত বিক্রি করা হয়। এ খবর শুনে মিনারুলের বাড়িতে ভীড় জমায় উৎসুক জনতা। তবে সবার চোখই ছিল অশ্রুসজল।

শনিবার বিকেল পাঁচটার দিকে সরেজমিনে পাবনার চাটমোহর উপজেলার ছোট গুয়াখড়া গ্রামের মিনারুল ইসলামের বাড়িতে গিয়ে দেখা যায়, টাইগারকে জবাইয়ের পর চামড়া ছাড়ানোর কাজ করছেন কসাইরা।

সেখানে ভীড় জমেছে হাজারো উৎসুক মানুষের। তারা যেন শেষবারের মতো টাইগারকে দেখছেন। উপস্থিত সবারই মন ছিল বিষন্ন। খামারী মিনারুল ইসলাম ও তার স্ত্রী জাকিয়া সুলতানার চোখ ছিল অশ্রুসজল।

Displaying 2.jpg

ষাঁড় গরুটির মালিক মিনারুল ইসলাম জানান, শনিবার বিকেল চারটার দিকে গোয়াল ঘরে পা পিছলে পড়ে যায় টাইগার। এতে পিছন ও সামনের ডান পা দু’টি ভেঙ্গে যায়। এতে অসুস্থ্য হয়ে পড়ে টাইগার।

পরে স্বজন ও প্রতিবেশি সবার পরামর্শে জবাই করে গোস্ত বিক্রির সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

মিনারুলের স্ত্রী জাকিয়া বলেন, টাইগারকে সন্তানের মতো লালন পালন করতাম। তাকে এভাবে হারাতে হবে বুঝতে পারিনি। খুব কষ্ট হচ্ছে। সব স্বপ্ন ভেঙ্গে গেলো।

শনিবার রাত আটটায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত টাইগারের গোস্ত বিক্রি চলছিল। ৫শ’ টাকা কেজি হিসেবে গোস্ত কিনতে দুর-দুরান্ত থেকে প্রচুর ক্রেতার সমাগম ঘটেছে।

উল্লেখ্য, ৯ ফুট দৈর্ঘ্য আর সাড়ে ৫ ফুট উচ্চতার ফিজিয়ান জাতের ষাঁড় গরুটির ওজন হয়েছিল ৪২ মন। কালো আর সাদা রঙ মিশ্রিত সুঠাম স্বাস্থ্যর অধিকারী ষাঁড় গরুটির নাম দেয়া হয়েছিল ‘টাইগার’। কোরবানির আগে টাইগারের দাম ৩০ লাখ টাকা হেঁকে আলোচনায় আসেন খামারী মিনারুল ইসলাম।

Displaying 1.jpg

এ বছর ঢাকার মোহাম্মদপুরে ঈদুল আযহার হাটে টাইগারের সর্বোচ্চ দাম উঠেছিল ১৮ লাখ টাকা। কাঙ্খিত দাম না পেয়ে বিক্রি না করে বাড়িতে ফিরিয়ে নিয়ে আসেন খামারী মিনারুল।

ইচ্ছা ছিল আরো এক বছর লালন পালনের পর আগামী ঈদুল আযহায় টাইগারকে বিক্রি করা। কিন্তু তার সে ইচ্ছা আর বাস্তবায়ন হলো না। অনেক টাকা লোকসান হলো বলে দাবি মিনারুলের।


    পাবনায় নামাজের সময়সূচি
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ০৪:২৮
    সূর্যোদয়ভোর ০৫:৪৬
    যোহরদুপুর ১১:৫২
    আছরবিকাল ১৬:১৬
    মাগরিবসন্ধ্যা ১৭:৫৯
    এশা রাত ১৯:২৯
© All rights reserved 2019 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!