বুধবার, ১৭ জুলাই ২০১৯, ০৯:৩১ অপরাহ্ন

ঢাকা-পাবনা সরাসরি ট্রেন চায় পাবনাবাসী

রনি ইমরান: সরাসরি ঢাকা থেকে পাবনা সদর ষ্টেশনে আন্ত:নগর ট্রেন চলাচলের দাবি তুলতে শুরু করেছে পাবনাবাসী।

এখন এই দাবির পক্ষে সরগরম সোসাল মিডিয়াসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন ও পাবনায় বসবাসরত সকল শ্রেণি পেশার মানুষ।

দিনকে দিন এ দাবির পক্ষে সোচ্চার হচ্ছেন সবাই। সবার কণ্ঠে উচ্চারিত হচ্ছে একটাই দাবি ঢাকা-পাবনা সরাসরি আন্ত:নগর ট্রেন সার্ভিস চালু করা হোক।

একথা বলার অপেক্ষা রাখে না যে, উন্নয়ন অগ্রগতিতে এগিয়ে চলা পাবনার যোগাযোগ ব্যবস্থায় এক অনন্য দিগন্তের সূচনা করেছেন আওয়ামী লীগ সরকার।

এই ধারাবাহিকতা আরও তরান্বিত করতে এখন ঢাকা থেকে পাবনা সরাসরি ট্রেন সার্ভিস চালুর দাবি তুলেছে পাবনাবাসী।

একশ বছরের বহুল কাঙ্খিত স্বপ্নে রেল আজ বাস্তবায়ন হয়েছে। এ অঞ্চলের মানুষের জন্যে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের স্বপ্নের রেল বাস্তবায়ন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দেশ স্বাধীন হওয়ার পর ১৯৭৪ সালে আওয়ামী লীগ সরকার পাবনাবাসীর দাবি বাস্তবায়নে এই মেগা প্রকল্প হাতে নেয়।

কিন্তু ১৯৭৫ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানকে নির্মমভাবে হত্যার পর প্রকল্পটি বন্ধ হয়ে যায়।

পরবর্তীতে ২০০৮ সালে জাতীয় নির্বাচনের আগে পাবনা শহরের বীর মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম বকুল মুক্তমঞ্চ মাঠে এক ভিডিও কনফারেন্সে আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনা পাবনার মানুষকে প্রতিশ্রুতি দেন আগামীতে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলে এই রেল প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।

তারই ধারাবাহিকতায় ২০১৩ সালের ২ ফেব্রুয়ারি সরকারি এডওয়ার্ড কলেজ মাঠে জনসভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই রেলপথ নির্মাণ প্রকল্পের উদ্বোধন করেন।

আর গত বছর (১৪ জুলাই ২০১৮) পাবনা পুলিশ লাইন মাঠে প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিকভাবে পাবনা-রাজশাহী ট্রেন চলাচলের উদ্বোধন করেন।

এরপর থেকে এখন প্রতিদিন ঈশ্বরদী, পাবনা রাজশাহী ট্রেন চলাচল করছে।

পাবনায় দীর্ঘকালের অপেক্ষার ট্রেন পাওয়ায় পাবনাবাসী আনন্দিত তবে দেশের কেন্দ্রবিন্দু রাজধানী ঢাকা টু পাবনা সরাসরি রেল সার্ভিস চালু হলে আরো উপকৃত হবে এ অঞ্চলের মানুষ।

ব্যবসায়ী, চাকরীজীবী, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীসহ সকল শ্রেণি পেশার মানুষের দাবি রাজধানী ঢাকা থেকে পাবনাগামী অন্তত একটি ট্রেন সার্ভিস চালু করা হোক।

পাবনা প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি প্রবীণ সাংবাদিক বীর মুক্তিযোদ্ধা রবিউল ইসলাম রবি বলেন, ট্রেন ভ্রমন একটি নিরাপদ ও আরামদায়ক ভ্রমণ।

পাবনা সদরের মানুষ যখন বহুপ্রতিক্ষিত রেল সুবিধা পেয়েছে সেক্ষেত্রে রাজধানীর সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগের ব্যবস্থা থাকলে পাবনাবাসী আরো উপকৃত হত।

পাবনা চেম্বার্স অব কমার্স এর সিনিয়র সহ-সভাপতি পাবনা তরুণ প্রজন্মের জনপ্রিয় ব্যক্তিত্ব আলী মর্তুজা বিশ্বাস সনি বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের সময় পাবনায় সকল ক্ষেত্রে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে।

আমরা ঢাকা থেকে পাবনা সরাসরি ট্রেনে আসতে পারলে ব্যবসা বানিজ্য ব্যাপক সম্প্রসারণ হতো।

এনটিভি ও সমকালের স্টাফ রিপোর্টার এবিএম ফজলুর রহমান বলেন, ঢাকা-পাবনা সরাসরি ট্রেন সার্ভিস চালু হলে আমাদের যাতায়াত আরামদায়ক হত।

পাবনা থেকে প্রকাশিত পাঠক নন্দিত দেশের জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল নিউজ পাবনার সম্পাদক ফয়সাল মাহমুদ পল্লব জানান, যেহেতু পাবনায় রেললাইন হয়েছে সেহেতু ঢাকা-পাবনা সরাসরি ভ্রমণের জন্য একটি ট্রেন থাকলে পাবনার মানুষ আরো উপকৃত হত।

শিল্প উদ্যোক্তা দেওয়ান ফারহান জানান, ঢাকা থেকে সরাসরি পাবনা আসতে পারলে আমাদের জন্যে অনেক সুবিধা হয়।

বিশ্ব বিদ্যালয়ের ছাত্রী শারমিন জানায়, বাসে পাবনা থেকে যাতায়াত করতে অনেক সময় যানজটের কারণে বিরক্তিকর মনে হয়। আরামদায়ক ট্রেন সার্ভিস চালু হলে উপকৃত হতাম।

এছাড়া সামাজিক মাধ্যম ফেসবুক, এই দাবি নিয়ে একটি গ্রুপ জোরদার প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছে।

পাশাপাশি সিটিজেন ভয়েস পাবনা, পাবনার আঞ্চলিক গ্রুপগুলোতে ও ব্যক্তিগত ওয়ালে এ দাবির পক্ষে সোচ্চার হচ্ছে সবাই।

ঢাকা টু পাবনা সরাসরি আন্ত:নগর ট্রেন সার্ভিস চালু হলে এ অঞ্চলের মানুষ যেমন উপকৃত হবে তেমনি ব্যবসা বানিজ্যের গতিশীলতা বৃদ্ধি পাবে।


    পাবনায় নামাজের সময়সূচি
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ০৩:৫৩
    সূর্যোদয়ভোর ০৫:২১
    যোহরদুপুর ১২:০৫
    আছরবিকাল ১৬:৪৪
    মাগরিবসন্ধ্যা ১৮:৪৮
    এশা রাত ২০:১৮
© All rights reserved 2019 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!