রবিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯, ০৯:১৬ অপরাহ্ন

দেশখ্যাত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ- এ পাকিস্তানি প্রেতাত্মা!

বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছে প্রায় অর্ধ শতাব্দি কিন্তু আজও পাকিস্তানি প্রেতাত্মা ভর করে আছে। আর এ কারণেই সম্ভবত এই দেশের রাজনৈতিক ঐক্যমত প্রতিষ্ঠা সুদূর পরাহত। যে পরিমাণ রক্ত আর জীবনের বিনিময়ে এই দেশ স্বাধীন হয়েছে, তা পৃথিবীর ইতিহাসে একমাত্র দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধই কেবলমাত্র তুলনা হতে পারে। এই দেশেরই রাজধানী ঢাকার প্রাণকেন্দ্র মতিঝিলে অবস্থিত আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ- এর। বড়ই পরিতাপের সাথে বলতে হচ্ছে কোন এক অজ্ঞাত কারণে স্বাধীনতার এত বছর পরও পাকিস্তানি প্রেতাত্মার নাম ফলক সগৌরবে এই স্কুলে দৃশ্যমান। স্কুলের ভিত্তিপ্রস্তর স্হাপনকারী পাকিস্তানি প্রেতাত্মার নাম ফলক কী করে এখনও আদর-যত্নে লালিত-পালিত হতে পারে? কৃতজ্ঞতা তো স্বীকার করতাম যদি আমাদের এত রক্ত–জীবন আর মা-বোনের ইজ্জত বিসর্জন না দিতে হত। খোদ বাংলাদেশের জাতীয় সংসদ ভাবন, শেরে বাংলা হাসপাতাল, বঙ্গবন্ধু চিকিৎসা মহাবিদ্যালায়, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালায় কিংবা অন্য কোন খানেও আমরা পাকিস্তানি হায়না আর প্রেতাত্মার চিহ্ন রাখিনি। সেখানে কার ইন্ধন ও আস্কারায় এখনও পাকিস্তানি প্রেতাত্মার নাম ফলক শোভা পায়? এই প্রতিষ্ঠানের নামে অভিযোগের অন্ত্য নেই। ধর্মীয় মূল্যবোধের কথা বলে এই স্কুলের অধিকাংশ শিক্ষকের আকাশচুম্বী সম্পদই বলে দেয় উনাদের ধর্মীয় মূল্যবোধ তো পরের কথা মানবিক মূল্যবোধটুকুও আছে কিনা সন্দেহ। জামাতের সাথে সংশ্লিষ্ঠতা উনাদের অনেক পুরাতন ঐতিহ্য।
এই স্কুল নিশ্চয় কোন মাদ্রাসা নয়, ক্লাস টু- থ্রি থেকেই আরবির যে অমানবিক চাপ শিশুদের উপরে তাই বলে দেয় “পাক সার জামিন সাদ-বাদ” –এর স্বপ্ন উনারা এখনও দেখেন। এই স্কুল কোন শিক্ষা-নীতিমালা, কোন শিক্ষা মন্ত্রণালায়ের আওতায় পরিচালিত হয়? নাম কা অয়াস্তে বাংলাদেশ সরকারের কোন একজন সচিব গভর্নিং বডির সভাপতির পদ অলঙ্কৃত করলেও পক্ষান্তরে করছেন কলঙ্কৃত। মনে রাখবেন আমরা এখনও জেগে আছি। সাড়ে সাত কোটি বাঙালির রক্ত বীজের ফসল আমাদের দেশ-বাংলাদেশ। ভণ্ডামি ছাড়ুন। রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ পর্যায়ের দৃষ্টিপাত আশা করছি।

পুনশ্চ : এই প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ কোথা থেকে এত শক্তি পান যে দুর্নীতির বিষয়ে কোন সাক্ষাৎকার নিতে গেলে সাংবাদিকদের পারলে পিটিয়ে তাড়ান। বিভিন্ন মিডিয়ার খবরে জানা যায়, উনারও শক্তির উৎস বাংলাদেশ সচিবালয়ের কোন এক সচিব। শর্ষের ভেতরে ভুত থাকলে ভুত তাড়াবে কার সাধ্য?


    পাবনায় নামাজের সময়সূচি
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ০৪:৫৩
    সূর্যোদয়ভোর ০৬:১৪
    যোহরদুপুর ১১:৪৩
    আছরবিকাল ১৫:৩৭
    মাগরিবসন্ধ্যা ১৭:১২
    এশা রাত ১৮:৪২
© All rights reserved 2019 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!