রবিবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৬:২৫ অপরাহ্ন

ব্যক্তিগত অভিমত প্রচার করায় মির্জা ফখরুলকে হুমকি দিলেন তারেক

তিন সিটি নির্বাচনে ব্যক্তিগত অভিমত প্রচারের জন্য লন্ডনে পলাতক বিএনপি নেতা তারেক রহমানের হাতে হেনস্থার শিকার হলেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ৩১ জুলাই বিএনপির নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলন নিজ মতামত প্রচারকে দলীয় শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে তারেকের হাতে ঝাড়ি খেয়েছেন তিনি।

এসময় ঘটনাস্থালে উপস্থিত নয়াপল্টন থানা বিএনপির সদস্য নাজির উদ্দিন বলেন, সংবাদ সম্মেলনের পরপরই তারেক রহমান লন্ডন থেকে ফোন করে অনুষ্ঠিত তিনটি সিটি নির্বাচন সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য হয়েছে বলে দাবি করেন।

তারেকের মতে, দেশবাসীসহ আন্তর্জাতিক মহল নির্বাচনগুলোর প্রশংসা করেছে। সুতরাং এত কিছুর পর নতুন করে অতি উৎসাহী হয়ে নির্বাচন নিয়ে বিরূপ মন্তব্য করে বিএনপিকে একটি নালিশ পার্টিতে পরিণত করার কোন প্রয়োজন দেখছেন না তারেক। এছাড়া মির্জা ফখরুল তারেককে না জানিয়েই এই সংবাদ সম্মেলন করে যে অসৎ সাহস দেখিয়েছেন সেটি নজিরবিহীন। দ্বিতীয়বার এমন কাজ করলে দলীয়ভাবে শাস্তি দিয়ে মির্জা ফখরুলকে বাংলাদেশ থেকে বিতাড়িত করারও হুমকি দিয়েছেন তারেক রহমান। তারেক রহমানের গালমন্দ খেয়ে মুষড়ে গিয়েছেন মির্জা ফখরুল। তবে সেখানে উপস্থিত বিএনপি নেতা রিজভী আহমেদকে এসময় মুচকি হাসতে দেখা গেছে ।

লন্ডন বিএনপি সূত্রে জানা যায়, সিটি করপোরেশন নির্বাচন নিয়ে বিএনপিকে আওয়ামী লীগ সরকারের নির্বাচনী ব্যবস্থার উপর পূর্ণ আস্থা রাখতে নির্দেশ দিয়েছিল দলটির বিদেশি বন্ধুরাষ্ট্রগুলো। তাদের মতে আওয়ামী লীগ সরকার সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন আয়োজন করতে সক্ষম। সরকারের সফলতার অন্যতম জায়গা হল নির্বাচন কমিশনকে শক্তিশালীকরণ এবং আন্তর্জাতিক মানের একটি সংস্থা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করা। আওয়ামী লীগ সরকার সিটি নির্বাচন আয়োজন করে ইতোমধ্যেই তাদের গ্রহণযোগ্যতার পরিচয় দিয়েছে।

সুতরাং সরকার যেহেতেু দেশবাসীসহ আন্তর্জাতিক মহলের গ্রহণযোগ্যতা ও সমর্থন পেয়েছে, সুতরাং সেটিকে কাজে লাগিয়ে পাকিস্তান, ভারত এবং ভারতের মাধ্যমে ইসরাইল বিএনপি নেত্রী বেগম জিয়ার মুক্তির জন্য বর্তমান সরকারকে অনুরোধ করা এবং তারেক রহমানের শাস্তি কমিয়ে দেশে ফেরার ব্যবস্থা করার কথা দিয়েছে। পাশাপাশি নির্বাচনে বিএনপির অংশগ্রহণের জন্য সরকারের সাথে সংলাপের ব্যবস্থা করতে সাহায্য করবে রাষ্ট্রগুলো। তারেক রহমান চিন্তা-ভাবনা ছাড়াই সব শর্ত মেনে নেন।

যেহেতু বন্ধু রাষ্ট্রগুলোকে কথা দিয়েছেন তারেক যে সরকারকে বিব্রত করে তার দল থেকে কেউ নেতিবাচক বক্তব্য দিবে না। তাই এই সময়ে এসে সিটি নির্বাচন নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে বিএনপিকে আবারও বেকায়দায় ফেলার জন্য মির্জা ফখরুলকে তাই যাচ্ছেতাই ভাষায় গালমন্দ করেছেন তারেক রহমান। সূত্র বলছে, এরপর থেকে বিএনপিকে পৈতিৃক সম্পত্তি ভেবে ইচ্ছামত বক্তব্য দিলে মির্জা ফখরুলকে ভবিষ্যতে দল থেকে বের করে দেওয়ার হুমকি দিয়েছেন তারেক। কথা না শুনলে বাংলাদেশ থেকে বিতাড়িত করারও হুমকি দিয়েছেন তারেক রহমান।.


বিজয় নিশান উড়ছে ঐ…

© All rights reserved 2018 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!