শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৭:১৯ অপরাহ্ন

ভারতকে এড়িয়ে চলছে নেপাল

চীনের সঙ্গে বাণিজ্যিক সম্পর্কের সেতু গড়ে তোলার পর প্রতিবেশী ভারতকে এড়িয়ে চলতে চাইছে নেপাল। সেই হিসাব মাথায় রেখেই ভারতসহ বিমসটেক জোটের দেশগুলির সঙ্গে যৌথ সেনা মহড়ায় নামতে নেপাল অস্বীকার করেছে।

আগামী সপ্তাহে ১০ থেকে ১৬ সেপ্টেম্বর পুনেতে ওই সেনা মহড়ার আয়োজন করছে ভারত। এটাই হবে বিমসটেক দেশগুলোর প্রথম যৌথ সামরিক মহড়া। সেই মহড়ায় যোগ দেয়ার ব্যাপারে ভারতের প্রস্তাব সরাসরি প্রত্যাখ্যান করল নেপাল।-খবর আনন্দবাজারপত্রিকা অনলাইনের।

নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি ওলির গণমাধ্যম উপদেষ্টা কুন্দন আরিয়াল ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমকে বলেছেন, এটা নেপাল সরকারের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত।

বিমসটেক হচ্ছে দ্য বে অফ বেঙ্গল ইনিশিয়েটিভ ফর মাল্টি-সেক্টরাল টেকনিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক কোঅপারেশন। এতে দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার সাতটি দেশ রয়েছে। দেশগুলো হচ্ছে, বাংলাদেশ, ভারত, মায়ানমার, নেপাল, শ্রীলঙ্কা, তাইল্যান্ড ও ভূটান।

দিল্লিতে বিমসটেক দেশগুলোর সেনাকর্তাদের বৈঠকের পর ওই সেনা মহড়ায় অংশ নেয়ার জন্য গত জুনে ভারতের তরফে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল নেপালকে।

কিন্তু তাতে যোগ দেয়া সম্ভব নয় বলে নেপালের তরফে আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতকে জানিয়ে দেয়া হয়েছে। তবে এতে নেপালের তরফে তিন জনকে পর্যবেক্ষক হিসেবে পাঠানো হচ্ছে।

যৌথ সেনা মহড়ার পর একটি সম্মেলন হওয়ার কথা ভারতীয় সেনাপ্রধানের উদ্যোগে। তাতেও নেপালের সেনাপ্রধানের যোগদানের সম্ভাবনা খুবই কম বলে কূটনীতিকরা জানাচ্ছেন।

কারণ সোমবারই নেপালের নতুন সেনাপ্রধান দায়িত্ব নিচ্ছেন। তার পর তিনি হাতে যে সময় পাবেন, তাতে তার পক্ষে ভারতীয় সেনাপ্রধানের আয়োজন করা সম্মেলনে যোগ দেয়া সম্ভব নয় বলে কূটনীতিকদের অনুমান।


© All rights reserved 2018 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!