বুধবার, ২৭ মার্চ ২০১৯, ০৫:০৩ পূর্বাহ্ন

মওদুদের তাচ্ছিল্যের শিকার হলেন অনশনরত কর্মীরা

 

বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার কারামুক্তির দাবিতে অনশনরত নেতাকর্মীরা বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের তাচ্ছিল্যের শিকার হয়েছেন। ১২ সেপ্টেম্বর দুপুরে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ারিং ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে আয়োজিত প্রতীকী অনশনে হাততালিরত নেতাকর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, হাততালি দিয়েন না, কর্মসূচি দিলে মাঠে কতজন থাকবেন দেখবো। মওদুদের এমন ব্যবহারে তাদের মধ্যে চাপা ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে বলে জানা গেছে। নেতাকর্মীরা বলছেন, অনশনরত কর্মীদের আরও উদ্যোমী করতে তারা হাততালি দিয়ে প্রফু্ল্ল রাখার চেষ্টা করলেও তা নষ্ট করে দিয়েছেন মওদুদ আহমেদ।

এ বিষয়ে অনশনে থাকা ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের একজন প্রভাবশালী ছাত্রনেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, মওদুদ সাহেব এমনভাবে কথা না বললেও পারতেন। সহজ ও সুন্দর করে বিষয়টি সকলের সামনে তুলে ধরলে নেতাকর্মীদের মধ্যে এতোটা ক্ষোভের সৃষ্টি হতো না। নেতাকর্মীদের সাথে তিনি বিরোধী দলের মতো ব্যবহার করেছেন।

কিছুটা ক্ষোভের সুরে অনশনে উপস্থিত থাকা আরও একজন নেতা বলেন, মওদুদ আহমেদ এমন ভাব দেখালেন যেন, সব দোষ আমাদের, সব দোষ মাঠ পর্যায়ের নেতাকর্মীদের। অথচ এযাবৎকালে আন্দোলন-কর্মসূচির কথা বলে তারাই ঘরে উঠে বসে থাকে। তিনি বলেন, সরকারের সঙ্গে আঁতাত করে মওদুদ সাহেব দলে বারবার সমালোচিত হয়েছেন। সে বিষয়ে আমরা জেনেও তার সম্মানার্থে কোনোদিন কটুক্তি করিনি। আর তিনি ভরা মজলিসে নেতাকর্মীদের বিনাদোষে অপমান করলেন!

প্রসঙ্গত, কেন্দ্রীয় বিএনপির পক্ষ থেকে বিভিন্ন সময়ে আন্দোলন-কর্মসূচি দেয়ার কথা বললেও তা প্রকাশ্যে রূপ দিতে পারেনি দলের কেন্দ্রীয় নেতারা। যদিও আন্দোলন-সংগ্রামে প্রস্তুত বিষয়ে অনেক বার্তাই দিয়েছে তৃণমূল কর্মীরা। কিন্তু তাদের সহযোগে কোনো আন্দোলনই গড়ে তুলতে পারেনি দায়িত্বে থাকা নেতারা। এই বিফলতার দোষ রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের নয়, দিচ্ছেন কেন্দ্রীয় নেতাদের।

এ বিষয়ে একজন রাজনৈতিক বিশ্লেষক বলেন, মওদুদ আহমেদের কটুক্তি কর্মীদের উদ্যোমতাকে নষ্ট করতে পারে। তবে দলের সংকটময় মুহূর্তে এবং জাতীয় নির্বাচনের প্রারম্ভে মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের এমনভাবে হেয়প্রতিপন্ন না করলেও পারতেন তিনি। তিনি কর্মীদের উদ্যোমকে জাগ্রত করতে গিয়ে, ক্ষোভের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছেন। এর ফল ভালো হওয়ার কথা নয়।


    পাবনায় নামাজের সময়সূচি
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ০৪:৩৮
    সূর্যোদয়ভোর ০৫:৫৬
    যোহরদুপুর ১২:০৪
    আছরবিকাল ১৬:২৯
    মাগরিবসন্ধ্যা ১৮:১২
    এশা রাত ১৯:৪২
© All rights reserved 2019 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!