শুক্রবার, ২২ নভেম্বর ২০১৯, ১১:৩২ পূর্বাহ্ন

‘সুবীর নন্দী হৃদয় দিয়ে গাইতেন’

সদ্য প্রয়াত সঙ্গীত শিল্পী সুবীর নন্দী হৃদয় দিয়ে গান গাইতেন বলে মন্তব্য করেছেন বিশিষ্টজন। শুক্রবার তার স্মরণে আয়োজিত সভায় বক্তারা বলেন, কণ্ঠ দিয়ে গান অনেকেই গাইতে পারেন, কিন্তু যারা হৃদয় দিয়ে সঙ্গীত পরিবেশন করেন তারাই প্রকৃত শিল্পী। সুবীর নন্দী ছিলেন তেমনই একজন। তার কর্মকে সংরক্ষণ করার বিষয়ে জোর দিয়ে বক্তারা বলেন, সুবীর নন্দীর কর্ম সংরক্ষিত হলে নতুন প্রজন্ম সেখান থেকে শিক্ষা নিতে পারবে।

শিল্পকলা একাডেমির সঙ্গীত, নৃত্য ও আবৃত্তিকলা মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত স্মরণসভার আয়োজন করে সঙ্গীত সংগঠন সমন্বয় পরিষদ। সংগঠনের সভাপতি তপন মাহমুদের কণ্ঠে ‘জীবন মরণের সীমানা ছাড়িয়ে’ গানটি পরিবেশনের মধ্য দিয়ে সভা শুরু হয়।

সভায় সুবীর নন্দীকে স্মরণ করে কথা বলেন তার বড় ভাই সুবিনময় নন্দী, সঙ্গীত পরিচালক সুজেয় শ্যাম ও অনুপ ভট্টাচার্য, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার, সাংবাদিক আবেদ খান, শিল্পী রথীন্দ্রনাথ রায়, ফকির আলমগীর, খুরশীদ আলম, আকরামুল ইসলাম, কবি নাসির আহমেদ, ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইউনিটের সমন্বয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন, বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক নারায়ণ চন্দ্র শীল প্রমুখ।

সুজেয় শ্যাম বলেন, সত্যিকার অর্থে অসাম্প্রদায়িক চেতনার মানুষ ছিলেন সুবীর নন্দী। তিনি শুধু গায়কই নন, একজন সঙ্গীত সাধক। রামেন্দু মজুমদার বলেন, তিনি হৃদয় দিয়ে গান গাইতেন। সে জন্য তার গান মনে সাড়া জাগাতো। তার মৃত্যু নেই। গানের মধ্য দিয়ে বেঁচে থাকবেন।

আবেদ খান বলেন, মানুষকে বাঁচিয়ে রাখতে হলে, তার কর্মকে বিবেচনা করতে হবে। সে কাজটাই সুবীর নন্দী করেছেন। তার মতো একজন শিল্পীকে পেতে হলে অনেক অপেক্ষা করতে হবে। রথীন্দ্রনাথ রায় বলেন, কণ্ঠ নয়, আত্মা গান গায়। তা সুরশ্রাব্য হয় মনের পবিত্রতা দিয়ে সাধনা করলে। সুবীর নন্দী সেই কাজটি করেছেন। যে গানকে গান নয়, প্রার্থনা মনে করতো। আকরামুল ইসলাম বলেন, সুবীর নন্দী সঙ্গীত সাধনার মতো গাইতেন। যা শ্রষ্টার সান্নিধ্য পাওয়ার সামিল। সামন্ত লাল সেন বলেন, সুবীর নন্দীর স্মৃতিকে ধরে রাখতে পারলে, তা থেকে নতুন প্রজন্ম শিখতে পারবে।

অনুপ ভট্টাচার্য বলেন, কেউ কেউ বলেন মান্না দে’র মতো গাইতে চেষ্টা করতো সুবীর নন্দী। কিন্তু সুবীর নন্দীর কোনো গান আমার কাছে এতোটাই ভালো লাগতো যে, মনে হতো মান্না দে গাইলেও হয়তো এতো ভালো হতো না। এই গানগুলো সুবীর নন্দীর কণ্ঠেই যেন মানিয়ে গেছে।

নারায়ণ চন্দ্র শীল বলেন, বাংলাদেশ বেতারে সুবীর নন্দীর গানগুলোকে সংরক্ষণের ব্যাপারে কিছু পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছে। সবাইকে বলবো, এ ব্যাপারে কারো কোনো পরামর্শ থাকলে বেতার কর্তৃপক্ষকে জানানোর জন্য তিনি অনুরোধ করেন।

অনুষ্ঠানে ফকির আলমগীর সুবীর নন্দীকে উৎসর্গ করে গেয়ে শোনান ‘সুরে বেধোছো জীবন তোমার/ শিল্পী সুবীর নন্দী’। এ ছাড়া ডালিয়া নওশিন, শেখ জসিম ও অন্তু খন্দকার সুবীর নন্দীর কয়েকটি গান গেয়ে শোনান।


    পাবনায় নামাজের সময়সূচি
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ০৪:৫৬
    সূর্যোদয়ভোর ০৬:১৭
    যোহরদুপুর ১১:৪৪
    আছরবিকাল ১৫:৩৬
    মাগরিবসন্ধ্যা ১৭:১১
    এশা রাত ১৮:৪১
© All rights reserved 2019 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!