বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯, ০৮:৪৪ পূর্বাহ্ন

হাঁটতে পারে গাড়ি!

দক্ষিণ কোরিয়ার প্রসিদ্ধ গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হুন্দাই মোটর গ্রুপ। এশিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে হুন্দাই পরিচিত। আর বিশ্বব্যাপী এর অবস্থান চতুর্থ। দক্ষিণ এশিয়ার তৃতীয় বৃহত্তম এই কোম্পানিটি এবার তৈরি করেছে ধ্বংসস্তূপের মধ্যে হেঁটে চলতে সক্ষম বিশেষ এক গাড়ি।

গাড়িটি সমতল রাস্তায় অন্যান্য গাড়ির মতোই চলবে। কিন্তু যখনই রাস্তা ভাঙাচোরা কিংবা পাথুরে পরিবেশের মুখোমুখি হবে তখন সেটি চাকা গুটিয়ে রীতিমতো হাঁটতে শুরু করবে। মূলত সুনামি, ভূমিকম্পের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের পর উদ্ধার অভিযান পরিচালনার উদ্দেশ্যেই বিশেষ ধরনের এই গাড়িটি তৈরি করেছে হুন্দাই।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের লাসভেগাসে অনুষ্ঠিত ‘কনজুমার ইলেকট্রনিক শো’তে হুন্দাই হেঁটে চলা একটি ছোট মডেলের গাড়ির প্রদর্শনী করে। গাড়িটির কার্যকারিতা সম্পর্কে হুন্দাইয়ের ভাইস প্রেসিডেন্ট জন সুহ বলেন, সুনামি কিংবা ভূমিকম্পের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময় দ্রুত সেখানে সাড়া দিতে হয়। উদ্ধার কার্যক্রম চালাতে গাড়ি ব্যবহার করা হলেও অনেক সময় দেখা যায়, দুর্যোগের কারণে ঘটনাস্থলে পৌঁছতে পারে না। সেই সমস্যার সমাধান হিসেবেই মূলত তৈরি করা হয়েছে হেঁটে চলতে সক্ষম বিশেষ এই গাড়িটি।

গাড়িটির বিশেষত্ব সম্পর্কে হুন্দাই জানায়, গাড়িটি পাঁচ ফুট পর্যন্ত উচ্চতার দেয়াল চড়তে পারে এবং ৫ ফুট দূরত্বের ফাঁকা অতিক্রম করতে পারে। প্রাকৃতিক দুর্যোগের মতো জরুরি পরিস্থিতিতে এটি বেশ কার্যকরী ভূমিকা রাখতে পারবে। মূলত গাড়ির চাকার সীমাবদ্ধতা অতিক্রম করতেই এই প্রকল্পের কথা চিন্তা করা হয়েছিল তিন বছর আগে। প্রকল্পটি দেখতে সাদামাটা মনে হলেও এর পেছনে প্রযুক্তিগত অনেক বড় কিছু চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হয়েছে।

অস্টন বিজনেস স্কুলের প্রফেসর ডেভিড বেইলি বলেন, গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো নিত্য নতুন ধারণার সন্নিবেশ ঘটান। তাদের সেই পরিকল্পনাগুলো শুধু গাড়ির নির্মাণের পরিধিকে আরো বেশি উন্নততর করার মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকে। কিন্তু হুন্দাই যেটি করেছে তা সত্যিই দারুণ ব্যাপার। দুর্যোগকবলিত স্থানে দ্রুত সাড়া দেওয়ার ক্ষেত্রে নতুন এই প্রযুক্তি খুবই কার্যকরী ভূমিকা রাখতে পারবে। প্রকল্পটিকে অনেকের কাছেই ছোট মনে হতে পারে কিন্তু এটি সত্যিই অনেক বড় একটি উদ্ভাবন।-বিবিসি

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


    পাবনায় নামাজের সময়সূচি
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ০৩:৪১
    সূর্যোদয়ভোর ০৫:১২
    যোহরদুপুর ১২:০০
    আছরবিকাল ১৬:৪০
    মাগরিবসন্ধ্যা ১৮:৪৮
    এশা রাত ২০:১৮
© All rights reserved 2019 newspabna.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!