রবিবার, ০৭ মার্চ ২০২১, ০৬:১৬ অপরাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

খুনসহ ডাকাতি মামলার রহস্য উদঘাটন করলো পাবনা পিবিআই

image_pdfimage_print

বার্তাকক্ষ : ২০১৪ সালের ৯ সেপ্টেম্বর পাবনার পাকশি টোলপ্লাজা গোলচত্বরের কাছাকাছি ফাঁকা রাস্তার মোড়ে মোটরসাইকেল চালককে কুপিয়ে হত্যা করে মোটরসাইকেল ডাকাতি করার রহস্য উৎঘাটন করেছে পুলিশ ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)পাবনা।

প্রায় দীর্ঘ সাত বছর পর এ খুনের রহস্য উদঘাটন করেছে তারা।

পাবনা পিবিআই সূত্র বলছে, রফিকুল ইসলাম লাভলু ও তার খালাতো ভাই মোস্তকিন মনোয়ার ইশতিয়াক পাকশি চায়না কর্টেজ থেকে মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফেরার পথে অজ্ঞাতনামা ৩/৪ জন ছিনতাইকারী রাস্তায় রশি দিয়ে তাদের গতিরোধ করে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে মৃতপ্রায় অবস্থায় রেল লাইনের ধারে ফেলে তাদের মোটরসাইকেল, মোবাইল ফোন নিয়ে চম্পট দেয়।

লাভলু পরদিন রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়।

মামলাটি প্রথমে ঈশ্বরদী থানা পুলিশ তদন্ত করে। তদন্তকারী অফিসার ছিনতাই হওয়া মোবাইলের সূত্র ধরে মোঃ ইয়াছিনকে গ্রেফতার করে।

ইয়াছিন গ্রেফতার হওয়ার পর থেকেই অত্র মামলার ঘটনার সাথে সরাসরি জড়িত তদন্তেপ্রাপ্ত আসামী পলাশ দীর্ঘদিন যাবত পলাতক ছিল।

পরবর্তীতে মামলাটির তদন্তভার সিআইডি গ্রহণ করে তদন্ত শেষে আসামী পলাশকে পলাতক দেখিয়ে বিজ্ঞ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে।
সিআইডি অভিযোগপত্র দাখিল করলে মামলার বাদী উক্ত অভিযোগপত্রের বিরুদ্ধে না-রাজি দাখিল করলে বিজ্ঞ আদালত মামলার তদন্তভার পিবিআই,পাবনাকে অর্পন করে।

উক্ত মামলার তদন্তভার গ্রহণ করে পিবিআই, পাবনার পুলিশ সুপার মোঃ ফজলে এলাহীর নির্দেশনা মোতাবেক তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক মোঃ আসাদউজ্জামান কিছুদিনের মধ্যেই তথ্য-প্রযুক্তি সহায়তায় উক্ত ঘটনার সাথে জড়িত ব্যক্তিকে সনাক্ত করে।

পিবিআই, পাবনা জেলা প্রধান পুলিশ সুপার মোঃ ফজলে এলাহীর এর সার্বিক তত্তাবধানে মূল আসামীদেরকে গ্রেফতারের জন্য টিম গঠন করা হয়।

মামলার মূল আসামীদেরকে গ্রেফতার করার জন্য বিভিন্নস্থানে অভিযান পরিচালনা করা হয়।

তারই অংশ হিসেবে তথ্য-প্রযুক্তির সহায়তায় গত ৮ জানুয়ারি সন্ধ্যায় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক মোঃ আসাদউজজামান এর নেতৃত্বে পিবিআই, পাবনা জেলার একটি চৌকস টিম বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে রাজশাহী জেলার চারঘাট থানার কালাবীপাড়া এলাকা থেকে আসামী মোঃ পলাশ মিয়াকে গ্রেফতার করে।

আসামী পলাশ মিয়ার দেওয়া তথ্য মতে মোটরসাইকেল ছিনতাই এর অপর সহযোগী আসামী তসলিম খাঁ কে ঐ দিনই রাতেই লালপুর থানার চানপুর বাজার থেকে গ্রেফতার করা হয়।

তাদের গ্রেফতার করে প্রাথমিক জিজ্ঞাসবাদ শেষে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়।

পরবর্তিতে টিআই প্যারেডের মাধ্যমে ডাকাতির কবল থেকে বেঁচে যাওয়া একজন মূল আসামী পলাশকে সনাক্ত করলে তদন্তকারী কর্মকর্তা বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে আসামী পলাশকে ২ দিনের রিমান্ডে এনে নিবিড়ভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করে।

জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে আসামী পলাশ ঘটনার সাথে নিজের সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করে অন্যান্য সহযোগী আসামীদের নাম প্রকাশ করে। (তদন্তের স্বার্থে অন্য আসামীদের নাম প্রকাশ করা সম্ভব হচ্ছেনা)।

আসামী পলাশকে আদালতে সোপর্দ করা হলে সে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী প্রদান করে। তার স্বীকারোক্তি মতে অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলে জানিয়েছে পাবনা পিবিআই।

0
1
fb-share-icon1


শৈশব কৈশরের দুরন্ত-দুষ্টু ছেলেটিই আজকের এমপি প্রিন্স

শৈশব কৈশরের দুরন্ত-দুষ্টু ছেলেটিই আজকের এমপি প্রিন্স

শৈশব কৈশরের দুরন্ত-দুষ্টু ছেলেটিই আজকের প্রিন্স অফ পাবনা

Posted by News Pabna on Thursday, February 18, 2021

© All rights reserved 2021 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
x
error: Content is protected !!