ছাত্রকে বলাৎকারে হেফাজত নেতা আটক!

এক মাদরাসাছাত্রকে বলাৎকার করার অভিযোগে ঈশ্বরদী উপজেলা হেফাজতে ইসলামের সভাপতি প্রিন্সিপ্যাল মাও. মুফতি মতিউর রহমানকে (৫০) পুলিশ আটক করেছে। বুধবার দুপুরে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

অভিযুক্ত মুফতি মতিউর স্থানীয় দারুল তালিম মাদরাসার প্রিন্সিপ্যাল ও কাচারীপাড়া জামে মসজিদের ইমাম। তিনি ঈশ্বরদী পৌর এলাকার পশ্চিম টেংরী মহল্লার মৃত বাদল মোল্লার ছেলে।

নির্যাতনের শিকার ছাত্রের নাম আব্দুর রাজ্জাক ওরফে রাজু। সে দারুল তালিম মাদরাসার ছাত্র ও কাচারীপাড়া মহল্লার মজিবুর রহমানের ছেলে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চত করেছেন ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিমান কুমার দাশ।

থানা সূত্র জানায়, গত সোমবার (১৪ মার্চ) রাত ১১টার দিকে আব্দুর রাজ্জাক রাজুকে বলাৎকার করেন মাও. মুফতি মতিউর রহমান। পরদিন ১৫ মার্চ সকালে শিশুটি অসুস্থ হয়ে পড়লে ঘটনাটি পরিবারসহ স্থানীয়রা জেনে যায়। তবে ঘটনা চেপে যাওয়ার জন্য দিনভর চলে নানা দেনবার। অবশেষে স্থানীয়রা রাত ৯টার দিকে প্রিন্সিপ্যাল মাও. মুফতি মতিউরকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। এ ব্যাপারে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।