শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ০৯:১০ অপরাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

নির্বাচনে কোন অপ্রীতিকর ঘটনা সহ্য করা হবেনা : জেলা প্রশাসক

বক্তব্য রাখছেন পাবনা জেলা প্রশাসক, রেখা রাণী বালো

image_pdfimage_print
বক্তব্য রাখছেন পাবনা জেলা প্রশাসক রেখা রাণী বালো

বক্তব্য রাখছেন পাবনা জেলা প্রশাসক রেখা রাণী বালো

চাটমোহর প্রতিনিধি : পাবনা জেলা প্রশাসক রেখা রাণী বালো বলেছেন, ৬ষ্ঠ ধাপে অনুষ্ঠিত আগামী ৪ জুন চাটমোহরের ৬টি ইউনিয়নের নির্বাচন অবাধ, নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এর কোন ব্যাতয় ঘটলে কঠোর ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন।

তিনি বলেন, নির্বাচন নিয়ে কোন অপ্রীতিকর ঘটনা সহ্য করা হবেনা। চাটমোহর একটি ঐতিহ্যবাহী উপজেলা। বিগত সকল নির্বাচনের চেয়ে হান্ডিয়াল, হরিপুর, ছাইকোলা, নিমাইচড়া, গুনাইগাছা এবং বিলচলন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন এবার অনেক ভালো হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

কোন প্রকার বিশৃঙ্খলা মেনে নেয়া হবেনা বলেও তিনি হুশিয়ারী উচ্চারণ করেন। অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের সকল আয়োজন সম্পন্ন করা হয়েছে বলেও তিনি জানান। প্রিজাইডিং অফিসারদের সকল ক্ষমতা দেয়া হয়েছে। আপনারা সরকারের একটি অংশ। সবাই আন্তরিক হয়ে নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করুন। তিনি বলেন, প্রতিটি ভোট কেন্দ্রে ২৫ জন করে অস্ত্রধারী সদস্য থাকবে। তারা প্রয়োজনে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহন করবে। চাটমোহরের নির্বাচন যেনো দেশের মধ্যে মডেল হতে পারে সে লক্ষ্যে আপনারা কাজ করুন।

গতকাল বুধবার (১ জুন) সকালে চাটমোহর উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে ইউপি নির্বাচনে দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রিজাইডিং অফিসারদের সাথে মতবিনিময়কালে প্রধান অতিথি হিসেবে তিনি এসব কথা বলেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বেগম শেহেলী লায়লার সভাপতিত্বে এবং সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ মিজানুর রহমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত মত বিনিময় সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোঃ সিদ্দিকুর রহমান, জেলা নির্বাচন অফিসার মোঃ সাইফুল ইসলাম, উপজেলা চেয়ারম্যান হাসাদুল ইসলাম হীরা, থানা অফিসার ইনচার্জ সুব্রত কুমার সরকার, প্রিজাইডিং অফিসার মজিবর রহমান প্রমূখ। 

অপরদিকে বুধবার (১ জুন) দুপুরে পাবনা জেলা প্রশাসক রেখা রানী বালো চাটমোহর উপজেলার ৬টি ইউনিয়নের প্রতিদ্বন্দ্বি চেয়ারম্যান প্রার্থীদের সাথে উপজেলা পরিষদের সভা কক্ষে মতবিনিময় করেন। মত বিনিময়কালে আওয়ামীলীগ প্রার্থীদের বিরুদ্ধে বিএনপি এবং আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীরা একে অপরের বিরুদ্ধে আচরণবিধি ভঙ্গ করে প্রচার-প্রচারনা, দেয়ালে পোস্টার সাঁটানো, নির্বাচনী অফিস ভাংচুর, মোটর সাইকেল ভাংচুর, অফিস দখল, ভুড়িভোজ, নগদ টাকা, লুঙ্গী শাড়ী বিতরণ, ভয়-ভীতি প্রদর্শন, প্রকাশ্যে নৌকায় সিল মারার ঘোষণা, সশস্ত্র মিছিল, হামলা-মামলা করার অভিযোগ করেন।

সভায় পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) সিদ্দিকুর রহমান বলেন, নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ হবে। এটা সরকারের নির্দেশ। আমরা কোন অন্যায়কারীকে ছাড়বো না, সেক্ষেত্রে কোন দল দেখা হবেনা।

পাবনা জেলা প্রশাসক রেখা রাণী বালো বলেন,‘নির্বাচন হবে অবাধ নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু। কোন অনিয়ম আর অন্যায় সহ্য করা হবে না। জনগণ যাকে ভোট দিবে সেই নির্বাচিত হবে। সরকার চাচ্ছে সুষ্ঠু নির্বাচন, আমরাও তাই চাচ্ছি। অনেক প্রার্থী আত্মীয়-স্বজনও রয়েছেন। আমরা থাকবো না কিন্তু আপনারা চাটমোহরেই থাকবেন। সুতরাং চাটমোহর সম্মান রক্ষা করা আপনাদেরই দায়িত্ব।

সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, জেলা নির্বাচন অফিসার মোঃ সাইফুল ইসলাম, উপজেলা চেয়ারম্যান হাসাদুল ইসলাম হীরা, ভাইস চেয়ারম্যান আরজ খান, রিটার্নিং অফিসার মোঃ সাখাওয়াত হোসেন, রিটার্নিং অফিসার মাহবুবুর রহমান, রিটার্নিং অফিসার ডাঃ কৃষ্ণ মোহন হলদার, থানা অফিসার ইনচার্জ সুব্রত কুমার সরকার, পৌর মেয়র মির্জা রেজাউল করিম দুলাল, মতবিনিময় সভায় হান্ডিয়াল, হরিপুর, ছাইকোলা, নিমাইচড়া, গুনাইগাছা এবং বিলচলন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী সকল চেয়ারম্যান প্রার্থী উপস্থিত ছিলেন।

মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার বেগম শেহেলী লায়লা। পরিচালনা করেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ মিজানুর রহমান।

0
1
fb-share-icon1

Best WordPress themes


© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!