রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৭:১৩ পূর্বাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

পাবনায় প্রতিমায় রং তুলির আচড় দিতে ব্যস্ত কারিগররা

image_pdfimage_print

পাবনা প্রতিনিধি : সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্বল্প আয়োজনে এ বছর পাবনা জেলার ৯ উপজেলায় ৩২৬টি মণ্ডপে শারদীয়া দুর্গাপূজা উদযাপন হবে।

এখন প্রতিমা তৈরি এবং প্রতিমায় রং তুলির আচড় দিতে ব্যস্ত সময় পার করছেন কারিগররা।

পাবনা জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক বাদল ঘোষ জানিয়েছেন, করোনার কারণে গত বারের চেয়ে কমিয়ে এবার ৩২৬টি পূজা মণ্ডপে শারদীয় দুর্গা পূজা হবে।

তবে পূজায় আড়ম্বরপূর্ণ হবে না। মন্দিরগুলোতে উচ্চ শব্দে মাইক এবং ব্যান্ড পার্টি থাকবে না। শুধু ঢাক-কাশি বাজিয়ে পূজা সম্পন্ন করা হবে। শুধু মন্দিরের ভেতরে প্রতিমা দেখার জন্য লাইটিং করা হবে। ব্যাপক পরিসরে কোনও আলোকসজ্জা করা হবে না।

তীথি অনুযায়ী আগামী ২২ অক্টোবর দেবীর আমন্ত্রণ ও আসনে অধিবাসের মধ্য দিয়ে দুর্গা পূজা শুরু হবে।

এরপর ২৬ অক্টোবর প্রতিমা বিসর্জনে মধ্যে দিয়ে শেষ হবে পাঁচ দিনের শারদীয় এই উৎসব। এ বছর দেবীর দোলায় আগমন এবং গজে গমন।

পাবনা জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ জানান, প্রতিটি পূজা মণ্ডপে সামাজিক নিরাপত্তা বজায় রেখে সুষ্ঠুভাবে পূজা উদযাপনের জন্য প্রশাসন থেকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। প্রতিটি মন্দিরের জন্য অর্ধ টন হিসেবে মোট ১৬৩ টন চাউল বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।

পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম জানান, নিরাপদ ও নিরাপত্তার সঙ্গে পূজা উদযাপনের জন্য সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে।

শান্তিপূর্ণভাবে পূজা উৎযাপনের জন্য পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। প্রতিমা প্রস্তুতের সময়ও মন্দিরগুলোতে সতর্ক দৃষ্টি রাখা হচ্ছে।

পূজা শুরু হলে মন্দিরে পুলিশ ও আনসার নিয়োজিত থাকবে এবং পুলিশ ও র‌্যাবের টহল টিম থাকবে।

0
1
fb-share-icon1

Best WordPress themes


© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!