পাবনায় ভ্রাম্যমান আদালতে ৫২ হাজার টাকা জরিমানা আদায়

vraman_addlatস্টাফ রিপোর্টারঃ জেলার নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ ইসমাঈল এর নেতৃত্বে ঔষধ প্রশাসন, পাবনার ঔষধ তত্ত্বাবধায়ক কে, এম, মুহসীনিন মাহবুব এর উপস্থিতিতে ও পুলিশের সহায়তায় শহরের খেয়াঘাট রোড এবং সদরের মালঞ্চী বাজার এলাকায় মঙ্গলবার দুপরে এক ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালিত হয়।

উক্ত ভ্রাম্যমান আদালতে ড্রাগ লাইসেন্স/ড্রাগ লাইসেন্স নবায়ন ব্যতিরেকে ফার্মেসী পরিচালনা, অনুমোদনবিহীন বিক্রয় নিষিদ্ধ ঔষধ ও টেস্টি স্যালাইন মওজুদ ও বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে প্রদর্শণ করার কারনে ভিন্ন ভিন্ন অপরাধে ড্রাগ অ্যাক্ট ১৯৪০-এর বিভিন্ন ধারা লংঘনের দায়ে ৫টি প্রতিষ্ঠানকে ভিন্ন ভিন্ন অপরাধে সর্বমোট ৫২ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনার খবর পেয়ে মালঞ্চী বাজারের অন্যান্য ওষুধের দোকান বন্ধ করে দেওয়ায় পরবর্তীতে অভিযান পরিচালনা করা সম্ভব হয়নি।
পরবর্তীতে বিভিন্ন সময়ে ঔষধের অনিয়ম প্রতিরোধে অভিযান পরিচালিত হবে মর্মে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট জানান।

মাঠ পর্যায়ের রুটিন কর্মকান্ডের অংশ হিসেবে ঔষধ প্রশাসন, পাবনার ঔষধ তত্ত্বাবধায়ক কে, এম, মুহসীনিন মাহবুব এর সহায়তায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জনাব মোহাম্মদ ইসমাঈল আদালত পরিচালনা করেন।

ঔষধ তত্ত্বাবধায়ক কে, এম, মুহসীনিন মাহবুব বলেন, ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান এর নির্দেশনা অনুযায়ী ভবিষ্যতে পাবনা জেলার সকল স্থানে এ ধরনের ভ্রাম্রমান আদালত আরও পরিচালিত হবে।

এ সময় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা শেষে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট জনাব মোহাম্মদ ইসমাঈল বলেন ঔষধ আইন সংক্রান্ত অনিয়ম প্রতিরোধে সকলকে সচেতন করার উদ্দেশ্যে আজকের ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করা হয়েছে এবং ভবিষ্যতেও এরুপ সচেতনতামূলক অভিযান অব্যাহত থাকবে।