রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০১:৪৮ অপরাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

বরের বয়স ১০৫, কনের ৮০

image_pdfimage_print

বর আহাদ আলী মণ্ডলের বয়স ১০৫ বছর, কনে আমেনা বেগমের ৮০। বুধবার রাতে নাটোর সদর উপজেলার দিঘাপতিয়া ইউনিয়নের পুকুর ডাঙ্গাপাড়া গ্রামে বেশ ধুমধাম করেই এই বৃদ্ধ-বৃদ্ধা করেন। তাদের বিয়ে ঘিরে গ্রামজুড়েই ছিল আনন্দ-উৎসব। নবদম্পতির দীর্ঘায়ু কামনা করে দোয়া ও মিষ্টি বিতরণ করা হয়।

আহাদ আলীর স্ত্রী মারা গেছেন এক যুগ হবে। আমেনা বেগমের স্বামী মারা গেছেন প্রায় ১০ বছর আগে। স্ত্রী মারা যাওয়ার পর আহাদ আলী প্রায় এক যুগ ধরে টিনের চৌচালা ঘরে একাই বসবাস করছিলেন। তার চার ছেলে ও তিন মেয়ের আলাদা সংসার হয়েছে। তারা তেমন খোঁজখবর নেন না। পান-সিগারেট বিক্রি করে নিজের খরচ চালান তিনি। হাসিখুশি মানুষ আহাদ আলীকে এতদিন দ্বিতীয় বিয়ের কথা বললেও তিনি রাজি হননি। হঠাৎ গ্রামবাসীর অনুরোধে তিনি তার প্রয়াত ছোট ভাই টুলু মণ্ডলের স্ত্রী আমেনা বেগমকে বিয়ে করতে রাজি হন। আমেনার দুই মেয়ে। বিয়ের পর তারা শ্বশুরবাড়ি চলে গেছেন।

বুধবার রাতে আহাদ-আমেনার সন্তান ও নাতি-নাতনি, গ্রামবাসীর উপস্থিতিতে তাদের বিয়ে হয়। বিয়ের দেনমোহর ৫০ হাজার ৬৫০ টাকা। বিয়ের আসরে নববধূকে ৬৫০ টাকা দামের একটি নাকফুল দিয়েছেন আহাদ। বিয়ের পর তারা যখন বাড়ি ফিরছিলেন, তখন গ্রামজুড়ে চলছিল আনন্দ উৎসব। আমন্ত্রণ না জানালেও আয়োজনে যোগ দেন শতাধিক মানুষ। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে নবদম্পতিকে দেখতে বহু মানুষ তাদের বাড়িতে ভিড় জমান। অনেকেই তাদের পাশে বসে ছবি তোলেন। বাড়ির বাইরে চলছিল বউভাতের আয়োজন। গ্রামবাসীই উদ্যোগী হয়ে বউভাতের আয়োজন করেন। রাতে চলে ধুম খাওয়া-দাওয়া।

বর আহাদ আলী মণ্ডল ওরফে আদি বলেন, বৃদ্ধ বয়সে তার একাকিত্ব কাটছিল না। এই নিঃসঙ্গতা কাটাতে তিনি আমেনা বেগমকে বিয়ে করেছেন। তাদের জন্য সবার দোয়া চেয়েছেন তিনি।

0
1
fb-share-icon1

Best WordPress themes


© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!