শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ১১:৫৪ অপরাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

‘ভূত আতঙ্ক’ বিরাজ করছে পাবনার একটি গ্রামে!

ছবি : প্রতীকী ও সংগৃহীত

image_pdfimage_print

নিজস্ব প্রতিবেদক : ‘ভূত আতঙ্ক’ ছড়িয়ে পরেছে পাবনার একটি গ্রামে। ঘটনাটি ঘটেছে পাবনা জেলা সদর থেকে মাত্র ৬ কিলোমিটার দুরে মালঞ্চী ইউনিয়নের মাহমুদপুর গ্রামে।

স্থানীয়রা বলছেন, ঘটনার সূত্রপাত সপ্তাহ দুই আগে একটি কিশোরী বিকেলে ছাগল আনতে মাঠে যায়, মাঠ থেকে ফিরে সে কিছুটা অসংলগ্ন আচরণ করে এবং রাতে পেটের প্রচণ্ড ব্যাথায় মৃত্যু বরণ করে।

তার ঠিক এক সপ্তাহ পরে ওই কিশোরীর কুলখানির দিন তার দাদা মারা যায়। আগেই লোকমুখে প্রচার ছিলো যে মেয়েটা কোনকিছু দেখে ভয়ে মারা গেছে। পরে দাদার মৃত্যুতে ভয়ের বিষয়টি লোকমুখে ছড়াতে থাকে।

এগ্রাম সেগ্রাম করে সেই কথা শহর পর্যন্ত পৌছেছে। ভূতের আতঙ্কের বিষয়টি এখন ‘টক অব দ্যা টাউন’ এ পরিণিত হয়েছে।

মাহমুদপুর এলাকার একাধিক মানুষের সাথে কথা বলে জানাগেছে, সন্ধ্যার আগেই ভূত আতঙ্কে বাজার ছাড়ছে মানুষ, ফাঁকা হয়ে যাচ্ছে ওই এলাকা। ফলে সব মিলিয়ে মাহমুদপুর গ্রামে এখন ভূতুড়ে পরিবেশ বিরাজ করছে।

এই ভূত আতঙ্ক নিয়ে কথিত আছে যে, একটি পুকুরের মাটি কাটতে গিয়ে একটি কাঁচের বোতল ভেঙ্গে যায়। ভেঙে যাওয়া কাঁচের বোতল থেকে ভূতটি বেড়িয়েছে এবং যে এই বোতলটি  ভেঙে ভূতটি বেড় করেছে তাকে নাকি ভূত ধন্যবাদও জানিয়েছে।

এতোদিন পরে মুক্ত হতে পেরে ভূত ওই লোকটিকে ধন্যবাদ দিয়ে হাওয়ায় মিলিয়ে গেছে এমন কথা লোকমুখে শোনা গেলেও এর প্রকৃত সত্য জানা যায়নি। কারণ যিনি ভূতের নিকট থেকে ধন্যবাদ পেয়েছেন তার সাথে কথা বলতে চাইলে তাকে পাওয়া যায়নি।

তবে ঘটনা যাই হোক, মাহমুদপুর এলাকার মানুষ ভূতের ভয়ে দিন কাটাচ্ছেন। খুব প্রয়োজন না হলে কেউ বাড়ি থেকে বেড় হচ্ছেন না। পাশাপাশি খুব দ্রুত এই ভূতের গল্প ছড়িয়ে পরছে গ্রাম থেকে গ্রামে।

Best WordPress themes


© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!