বৃহস্পতিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২১, ০৪:৪৫ অপরাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

‘ভোট দিলেও চেয়ারম্যান না দিলেও আমি চেয়ারম্যান’

image_pdfimage_print

01_106578আতাইকুলা (পাবনা) সংবাদদাতা : আগামী ২৮ মে শনিবার পাবনার সাঁথিয়া উপজেলার আর- আতাইকুলা ইউনিয়নের নির্বচানের প্রাক্কালে এখানকার বহুল বিতর্কিত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী কোরবান আলী প্রকাশ্য জনসভায় ঘোষনা দিয়েছেন ‘ভোট দিলেও চেয়ারম্যান না দিলেও আমি চেয়ারম্যান।’

তার এ ঘোষণার পর জেলা- উপজেলা প্রশাসনসহ নানা মহলে বিষয়টি আলোচিত হচ্ছে। বিব্রতকর পরিস্থিতির মুখে পড়েছেন স্থানীয় আ’লীগ নেতৃবৃন্দ। আর প্রশাসনের ইজ্জতের ব্যাপার হয়ে দাড়িয়েছে। তাই সবার দৃষ্টি এখন আর আতাইকুলার দিকে।

স্থানীয়রা জানান, নানা অঘটনঘটনপটীয়সী কোরবান আলীর জনপ্রিয়তা এখন শূণ্যের কোটায়। সুষ্ঠু ভোট হলে তিনি মোট দিয়ে একশ’ থেকে দু’শ ভোট পাবেন কিনা সন্দেহ। আ’লীগ কর্মী-সমর্থকরা এখানকার আ’লীগ বিদ্রোহী প্রার্থীর দিকে ঝুকেছেন। বিদ্রোহী প্রার্থীর ব্যাপক সুনাম থাকায় অন্যান্য দলের ভোটও তার দিকে গড়াতে পারে।

এক্ষেত্রে সুষ্ঠু ভোট হলে কোরবান আলীর পরাজয় তথা জামানত বাজেয়াপ্ত হওয়া সময়ের ব্যাপার। তার সাথে কিছু চাঁদাবাজ মাদকসেবী আর পেটোয়াবাহিনী ছাড়া কেউ নেই। তিনি এরই মধ্যে তার শ্যালক ও ভায়ের মাধ্যমে ভাড়াটিয়া সশস্ত্র মাস্তান বাহিনী দিয়ে আর- আতাইকুলা বোঝাই করে ফেলেছেন। অন্যান্য প্রার্থী ও তার কর্মী- সমর্থকদের হুমকি দিয়ে মনোবল ভেঙে দেয়ার চেষ্টা করছে।

উপজেলা আ’লীগের একজন নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, কোরবান আলীর কারণে আ’লীগ সম্বন্ধে জনগণ বিরূপ মন্তব্য করে। তিনি বলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিষয়টি জানলে এমন ব্যক্তিকে দলে রাখতেন না। একটি মহল এগুলো প্রধানমন্ত্রীকে জানতে দিচ্ছেন না। তিনি বলেন, যে দিন প্রধানমন্ত্রী জানবেন সেদিন এদের পৃষ্ঠপোষকতা করার লোকরাও ছাড়া পাবেন না। তিনি বলেন, নিরপেক্ষ ভোট হলে আর- আতাইকুলায় আ’লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী জিততে পারেন। তিনিও তো আ’লীগ করেন। তাকে মনোনয়ন বঞ্চিত করা হয়েছে। এখন অন্তত সুষ্ঠু ভোটে সহায়তার মাধ্যমে তাদের প্রতি একটু ন্যায় বিচার করা দরকার।

সাধারন জনগন বলেন, কোরবান কার্যত অসহায়, জোর করে ভোট নেয়া ছাড়া তার আর কোন উপায় নেই। তিনি এখন দিগবিদিক শুণ্য। তারা পুলিশ, র‌্যাব ও বিজিবি কে মাথা উচু করে দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানান। তারা আর-আতইকুলার আতাইকুলা উচ্চ বিদ্যালয়সহ কেন্দ্রগুলোতে র‌্যাব বিজিবি ও ম্যাজিস্ট্রেটের টহল জোরদার করার দাবি জানান। তারা বলেন, জনগণ লাঠিসোটা দিয়ে কোরবান বাহিনীকে প্রতিহত করতে প্রস্ততি নিচ্ছে।

0
1
fb-share-icon1

Best WordPress themes


© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
x
error: Content is protected !!