শুক্রবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২১, ০৭:৫০ অপরাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

মাত্র ৩০০ টাকার বিনিময়ে নদীতে ফেলে শিশু হত্যা

image_pdfimage_print

নিউজ ডেস্ক : মাত্র ৩০০ টাকার বিনিময়ে নদীতে ফেলে হত্যা করা হয় চারঘাট উপজেলার দেড় বছরের শিশু আজমাইন সারোয়ার আলিফকে। এ ঘটনায় পুলিশ দুজনকে গ্রেফতার করেছে। এদের মধ্যে শিশুটির মামি পারভীন বেগম হত্যার দায় স্বীকার করে বৃহস্পতিবার আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। তিনি জানান, পূর্বশত্রুতার জের ধরে মাত্র ৩০০ টাকার বিনিময়ে এলাকার মাদকাসক্ত আজাদকে (৩৬) দিয়ে শিশুটিকে নদীতে ফেলে হত্যা করা হয়।

রাজশাহী জেলা পুলিশের মুখপাত্র ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইফতে খায়ের আলম জানান, গত ৯ আগস্ট চারঘাট মডেল থানার কালুহাটি গ্রামের বড়াল নদীতে ভাসমান অবস্থায় এক বছর সাত মাস বয়সী শিশু আজমাইন সারোয়ার আলিফের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় শিশু আলিফের মা চম্পা বেগম বাদী হয়ে তার ভাবি পারভীন বেগমকে আসামি করে চারঘাট থানায় হত্যামামলা দায়ের করেন। চারঘাট থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে পারভীন বেগমকে (৩৫) গ্রেফতার করে।

তিনি বলেন, পারভীনকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে তিনি পুলিশকে জানান, একই গ্রামের মাদকাসক্ত আজাদকে দিয়ে গত ৭ আগস্ট শিশু আলিফকে অপহরণ ও হত্যার পরিকল্পনা করেন পারভীন। সেই পরিকল্পনা মোতাবেক ৮ আগস্ট শিশুটিকে কোলে নিয়ে পারভীন তার বাড়ির সামনে রাস্তায় যান। সেখানে অপেক্ষমান মাদকাসক্ত আজাদ শিশুটিকে নিয়ে তার শরীরে থাকা রুপার চেইন ও কোমরের বিছা খুলে শিশুটিকে বড়াল নদীতে ফেলে দেন। এরপর আজাদ গিয়ে পারভীনকে রুপার চেইন ও কোমরের বিছা দেন। এ জন্য পরভীন আজাদকে ৩০০ টাকা দেন।

ইফতে খায়ের আলম বলেন, পারভীনকে নিয়ে অভিযান চালিয়ে তার বসতবাড়ির ভেতর লিচু গাছের তলায় আবর্জনার স্তুপে মাটিতে পুঁতে রাখা শিশু আজমাইন সারোয়ার আলিফের রুপার চেইন ও কোমরের বিছা উদ্ধার করা হয়েছে। পারভীন দোষ স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। আজাদকেও গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

0
1
fb-share-icon1

Best WordPress themes


© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!