সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯:০৮ পূর্বাহ্ন

আতঙ্কিত হবেন না
করোনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন

সাঁথিয়ায় গম ক্রয়ে অনিয়ম, টনপ্রতি ৪ হাজার টাকা উৎকোচ

সাঁথিয়ায় গম ক্রয়ে অনিয়ম, টনপ্রতি ৪ হাজার টাকা উৎকোচ

image_pdfimage_print

সাঁথিয়া সংবাদদাতা : পাবনার সাঁথিয়ায় খাদ্য গুদামে সরকারি গম সংগ্রহে নানা অনিয়ম এবং দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে। সরকারি নিয়ম না মেনে তারা কৃষকদের কাছ থেকে গম সংগ্রহ না করে ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটের কাছ থেকে উৎকোচের বিনিময়ে গম সংগ্রহ করছে। এতে গমের ন্যায্য মূল্য থেকে বঞ্চিত হচ্ছে প্রকৃত গম চাষিরা। ফলে সরকারের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য ব্যহত হচ্ছে।

অভিযোগে জানা যায়, গুদাম ইনচার্জ টনপ্রতি চার হাজার টাকা করে উৎকোচ নিয়ে কতিপয় সিন্ডিকেট ব্যবসায়ীদের আমদানী করা নিম্নমানের গম ১০ চাকার বড় গাড়িতে করে নিয়ে আসছে।

সরেজমিন দেখা যায়, গুদাম ইনচার্জ দাঁড়িয়ে থেকে ১০ চাকার গাড়ি থেকে গম গুদামে রাখছেন শ্রমিকরা। সাংবাদিক আনলোড করা অবস্থায় ওই ট্রাকের ছবি তুলতে গেলে সেখানে ম্যানেজ করার জন্য এগিয়ে আসেন ওই অফিসের জনৈক্য কর্মচারি। তিনি বাধা দেন ছবি তুলতে।

জানা গেছে, টন প্রতি চার হাজার টাকা করে উৎকোচ নিয়ে এসব নিম্নমানের গম সংগ্রহ করছে স্থানীয় সিন্ডিকেট ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা কর্মচারিরা। আর এই উৎকোচের টাকার ভাগ প্রশাসন থেকে শুরু করে আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা পর্যন্ত পেয়ে থাকেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

পাবনা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিস সূত্রে জানা যায়, চলতি মৌসুমে সাঁথিয়া উপজেলায় ১ হাজার ৬শত টন গম সংগ্রহের লক্ষ্য মাত্রা নির্ধারণ করা হয়। আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত চলবে এই গম সংগ্রহের অভিযান।

সরকারি খাদ্য গুদামে নিয়মনুযায়ী কৃষি উপকরণ সহায়তা কার্ড রয়েছে এমন কৃষকরা ৫০ কেজি থেকে তিন টন পর্যন্ত গম খাদ্য গুদামে দিতে পারবেন। প্রতি কেজি গম সংগ্রহের মূল্য ধরা হয়েছে ২৮ টাকা। উপজেলার কিছু অসাধু ব্যবসায়ীরা বিভিন্নভাবে কৃষকদের কাছ থেকে কার্ড সংগ্রহ করে সেই কার্ড দিয়ে গম সরবরাহ করছেন। কোন প্রকৃত কৃষক খাদ্য গুদামে এখন পর্যন্ত এক কেজি গমও সরবরাহ করতে পারেনি।

সূত্র জানায়, উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার বিভিন্ন গ্রাম থেকে কৃষকের তালিকা করার কথা থাকলেও সেখানে কোনো নিয়ম না মেনে দুই-একটি গ্রাম থেকে সিন্ডিকেটের নিজস্ব লোকজনের নাম তালিকায় দেওয়া হয়েছে।

সাঁথিয়া উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা রঞ্জন কুমার প্রাং বলেন, ‘উপজেলা খাদ্য অধিদপ্তর থেকে আমার নিকট তালিকা চাওয়া হলে আমরা যেসব কৃষকের কৃষি উপকরণ সহায়তা কার্ড আছে তাদের তালিকা দিই। কিন্তু দেখা গেছে যে তালিকায় গম ক্রয় হচ্ছে সেখানে তাদের নাম নেই।’

সাঁথিয়া উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা (অতিরিক্ত দায়িত্বে) আলিউল কবির বলেন, ‘গম ক্রয়ে কেউ যদি অনিয়ম করে তবে অবশ্যই তার বিরুদ্ধে আইননানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

এ বিষয়ে সাঁথিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার জাহাঙ্গীর আলমের নিকট জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের জানান, গম ক্রয়ে কোন অনিয়ম হচ্ছে না। ১০ চাকার ট্রাকে করে গম সরবরাহের বিষয়ে তিনি বলেন, সেটা কৃষকের ব্যাপার তারা কিভাবে ডেলিভারি দিবে।


পাবনার কৃতী সন্তান অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী

পাবনার কৃতী সন্তান অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী

পাবনার কৃতী সন্তান অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী

Posted by News Pabna on Tuesday, August 18, 2020

পাবনার কৃতি সন্তান নাসা বিজ্ঞানী মাহমুদা সুলতানা

পাবনার কৃতি সন্তান নাসা বিজ্ঞানী মাহমুদা সুলতানা

পাবনার কৃতি সন্তান নাসা বিজ্ঞানী মাহমুদা সুলতানা

Posted by News Pabna on Monday, August 10, 2020

© All rights reserved 2020 ® newspabna.com

 
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!